সুখ-দুঃখের শিক্ষনীয় ২০২০

২৯ ডিসেম্বার, ২০২০ ০৭:৩২ pm

আমি দুঃখ কে সুখ ভেবে বইতে পারি
যদি তুমি পাশে থাকো
আমি সব কিছু হাসি মুখে সইতে পারি
যদি তুমি পাশে থাকো
একটু বাতাস যদি হয়ে যায় ঝড়
সেই ঝড়ে ভেঙে যদি যায় বাঁধা ঘর
আবার নতুন ঘর বাঁধতে পারি
যদি তুমি পাশে থাকো।

 

বিশ্ব জুড়ে করোনা এসে পাল্টে গেছে সবি
পাল্টাতে পারেনি অনেকেই
তাদের স্বভাব খানি
তাইতো এখন পৃথিবী জুড়ে
চলছে কোভিড ১৯ খেলা
জানিনা কে যে কখন যাবো চলে
আছে কি ভাই তার হিসাব খানা
বিদায়ী ২০২০ বলে গেছে
সামনে আছে আরও অনেক ঝামেলা।

 

প্রিয় পাঠক আমি আমার ক্ষুদ্র জীবনে মাঝে মাঝে কিছু লেখার চেস্টা করে থাকি জানিনা আপনাদের কাছে কেমন লাগে, অনেকেই নেশা হিসাবে নিজেকে নানান পথেই পরিচালিত করে, আর আমি নেশা হিসাবে সাংবাদিকতা,লেখালেখি, নাটক এসব করে থাকি। মহান আল্লাহর বান্দা হিসাবে এবং তার দেয়া জীবন আপনি, আমি, আমরা অবশ্যই ভালো কাজেই পরিচালিত করতে হবে। আমি নইতো কবি, লেখক পরিচিত জন নিজেকে তবুও ভাবি পাঠকরাই আমার আপনজন।

 

যাক কথা না বাড়িয়ে প্রবাসের মাটিতে বসে বিদায়ী ২০২০ এ যা হারিয়েছি আর যা পেয়েছি তাই নিয়েই কিছু সুখ-দুঃখের স্মৃতি কথা তুলে ধরছি স্বল্প পরিসরে অল্প করে-

 

২০১৯ পৃথিবীর মানুষ আনন্দের সাথে কাজের মাধ্যমে নিজের জীবনকে অতিবাহিত করছিলো, ভালই চলছে সবাই যে যার মতো করে, এরি মাঝে হঠাৎ করেই চায়না নামক দেশ থেকে বায়না ধরে করোনা নামক যন্ত্রণার কারনে মুহুর্তেই বদলে গেলো সব, পাল্টে গেলো দুনিয়া।

 

কি রাজা, কি গরীব সবার চোখে মুখে আতংক, একটু বেঁচে থাকার চেস্টা, অডেল টাকা আছে কিন্তু বাচার জন্য রাস্তা নাই। বিশ্ব জুড়ে মহামারী করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারে গেলো লাখো মানুষ, দেশে-প্রবাসে রাস্তার পাশে মিলেছে মরদেহ, সেকি যন্ত্রণা, আক্রান্ত হয়ে অনেকেই হাসপাতালে, বাসা, রাস্তার ধারে জুবড়িতে একটু বেঁচে থাকার জন্য সৃষ্টি কর্তাকে ডেকেছেন দিন রাত।

 

কি অমুসলিম, কি হিন্ধু, কি বৌদ্ধ, কি খৃষ্টান ধর্মালম্বীরা সকলের মাঝেই বেঁচে থাকার জন্য সেকি কাকুতি।

 

দেশে দেশে সরকার প্রধানগন নিজেরাও চলে গেলেন ঘরে ঘরে-আর ঘোষণা দেয়া হলো দেশের সাধারণ মানুষদের বাঁচানোর জন্য সবাই ঘরে থাকুন, নিরাপদে থাকুন, একে অন্যের কাজ থেকে দুরত্ব বজায় রেখেই চলুন।

 

মুখে মাস্ক, হাথে হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহার করতে হবে, গরম পানি পান করতে, লেবু চা ইত্যাদি।

দুনিয়ার সকল মানুষ তাই পালন করেছে আজও করছে।

 

তবে ভিন্ন চিত্র দেখা গেলো আমার চির সবুজ দেশ বাংলাদেশের মানুষের মাঝে। গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভিডিও বার্তার মাধ্যমে দেশের আপামর জনসাধারণ কে সচেতন হওয়ার জন্য বললেন, নিরাপদে থাকতে বললেন, সাধারণ মানুষের পাশে সরকার আছে, দেশের প্রতিটি জেলা, উপজেলা, ইউনিয়ন, ওয়ার্ডে করোনায় কর্মহীন মানুষের মাঝে খাদ্য সহায়তা সহ যাবতীয় সাহায্য সহযোগিতা দেয়া হবে, তিনি করেছেনও তাই।

 

করোনায় কর্মহীন মানুষের কল্যাণে কাজ করেছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী। অনেকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানাই।

 

দুঃখের বিষয় হচ্ছে- সরকারের দেয়া ঘোষণা উপেক্ষা করে একশ্রেণির উচ্চাভিলাষী ব্যবসায়ী ভাইয়ারা এক টাকার মাল ১০ টাকা নিয়েছে সাধারণ মানুষের কাছ থেকে, আবার দেশের বিভিন্ন ইউনিয়ন চেয়ারম্যান, মেয়র সাধারণ মানুষের জন্য দেয়া সরকারের সাহায্য সহযোগিতা গুলি নিজের মনে করে স্বজনপ্রীতি খাঠের নিচে, গোয়াল ঘরে, বাগানে লুকিয়ে রেখেছে, স্থানীয় প্রশাসনের হাতে ধরা খেয়েছে, তাদের বিচারও হয়েছে।

 

এই লজ্জা রাখি কোথায়? যারা করোনা কালীন সময়ে এমন কাজ করেছে সাধারণ মানুষের হোক মেরে খেয়েছে এদের কি বলা উচিৎ ভাষা খুঁজে পাইনা।

 

অপরদিকে বাংলাদেশ সরকারের পুলিশ বাহিনী, জেলা প্রশাসক, উপজেলা নির্বাহী অফিসার, ডাক্তার, নার্স, চেয়ারম্যান, মেম্বার, সাংবাদিক, সাংস্কৃতিক, সামাজিক সংগঠন এর মানুষ গুলি নিজের জীবনের কথা, নিজের পরিবারের সাস্থ্য ঝুঁকির কথা না ভেবে সাধারণ মানুষের কল্যাণে কাজ করেছেন তাদের প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধা এবং সালাম জানাই।

 

করোনায় কর্মহীন মানুষের কল্যাণে কাজ করেছে রাজনৈতিক দলের নেতারা, বিশেষ করে বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সদস্যরা দেশ জুড়ে মহামারী করোনার কারনে অনেক কৃষক ভাইয়ের জমির ধান কাটার লোক ছিলো দেখে সেই সব কৃষক ভাইদের কল পেয়েই ছুটে গিয়েছে বাংলাদেশ ছাত্রলীগের নিবেদিত সদস্যরা, তাদের প্রতি সন্মান জানাই।

 

আবার অনেক জেলায় কিছু রাজনৈতিক বেশি নেতা কৃষক এর জমির কাচা ধান কেটে ঘটাও করে সেল্পিবাজি করতে গিয়ে রসাতলে পড়েছেন, হয়েছে সমালোচিত।

যা হারিয়েছি তা ফিরে পাওয়ার নয় আর যা দিয়েছেন তা হারিয়ে যাওয়ার নয়। পাওয়া আর না পাওয়ার নাম জীবন।

 

বিশ্ব জুড়ে করোনা নামক তান্ডবের কথা কেউ ভুলে যাবেনা কোভিড-১৯- এ চোখের সামনে মায়ের, বাবার, আত্মীয় স্বজনদের মৃত্যু হতে দেখেও কেউ কাছে যেতে পারেনি, চোখের সামনে সন্তানের মৃত্যু হতে কাছে গিয়ে ধরতে পারেনি, মৃত্যুর পরে লাশের পাশে যেতে পারেনি এ কিসের আলামত দেখিয়ে যাচ্ছে করোনা? এর ভেতরেই আবার জন্ম হয়েছে অনেক নবাগত শিশুর।

 

জন্ম আর মৃত্যুর খেলায় মেতে উঠেছে গোটা পৃথিবী একেই বলে আল্লাহর খেলা, ক্রমশ পৃথিবীটা বাসের অযোগ্য হয়ে পড়ছে।

করোনার খেলা শেষ না হতেই আবার বৃটেন থেকে শুরু হয়েছে ভিইউ আই নামক ২০২০ সালের স্ট্রেন ভারিয়েন্ট নামক ভাইরাসের। যা করোনা থেকেও মারাত্মক বলে বিশ্ব সাস্থ্য সংস্থা ডব্লিউইচও বলছে আর বৈজ্ঞানিক নাম দিয়েছে VUI.

 

সবিই সৃষ্টির স্রস্টার লিলা খেলা। যা পেয়েছি করোনা কালীন সময়ে- ২০ এপ্রিল আমি শিশু কন্যার বাবা হয়েছি যার নাম মারিয়াম আলম – প্রবাসের মাটিতে বসেই সংবাদ পেয়েছি, ভাতিজা সাফোয়ান এর জন্ম হয়েছে তার জন্য শুভ কামনা, ভাগিনার ঘরের সন্তানের নানা হয়েছি তার জন্য শুভ কামনা।

 

করোনায় যা হারিয়েছি – ১০ জুন ২০ আমার প্রানের প্রিয় মা ফিরোজা বেগমকে যে কস্ট ভুলবার নয় – মহান আল্লাহ উনাকে জান্নাতবাসী করুন, হারিয়েছি মেহের ডিগ্রি কলেজের শিক্ষক প্রিয় কবিরুল ইসলাম মজুমদার স্যারকে, হারিয়েছি দৈনিক চাঁদপুর কন্ঠের শাহরাস্তি অফিস ইনচার্জ মইনুল ইসলাম কাজল ভাইয়ের আম্মা আমার প্রিয় খালাম্মাকে – জান্নাতবাসী করুন।

 

করোনা কালীন সময়ে দেশের যে যেখানেই মারে গেছেন তাদের সকলের বিদাহী আত্মার মাগফেরাত কামনা করছি মহান আল্লাহ সবাইকে জান্নাতবাসী করুন।

 

এক কথায় ২০২০ সালের ইতিহাস লিখে শেষ করা যাবেনা
বিদায় বছরে আল্লাহ যা দিয়েছেন তাই পেয়েছি।

 

মহান আল্লাহর দরবারে দোয়া করি আগত ২০২১ সালে পৃথিবী জুড়ে যে অস্থিরতা তা দুর করে পৃথিবীকে বাস যোগ্য করে দিন, মরার আগেই যেন আতংকে মরে না যাই। তোমার নিয়ম মাফিক ডাকেই যাবো চলে সুন্দর এই পৃথিবী ছেড়ে, এখানে নিজের ইচ্ছায় কাহারো থাকার সাধ্য নাই।

 

মনে রাখবেন দুনিয়ায় আসার কালে সবাই খালি হাতে এসেছেন আবার খালি হাতে ভিখারি হয়েই যেতে হবে – তাই আসুন সবাই করোনায় শিক্ষা গ্রহন করি, সততার সাথে মানুষের কল্যাণে কাজ করি।

 

লেখক পরিচিতি- রোটারিয়ান মোঃ জাহাঙ্গীর আলম হৃদয়, প্রবাসী সাংবাদিক, নাট্যকার, কবি, লেখক, টেলিভিশন অভিনেতা, সাংস্কৃতিক সংগঠক।

নবাগত পুলিশ সুপারকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কল্যাণ সমিতির পক্ষ থেকে ফুলেল শুভেচ্ছা

নবাগত পুলিশ সুপারকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কল্যাণ সমিতির পক্ষ থেকে ফুলেল শুভেচ্ছা

এমদাদুল হক সোহাগ: কুমিল্লাস্থ ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কল্যান সমিতির পক্ষ থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার কৃতি সন্তান কুমিল্লা জেলার নবাগত পুলিশ সুপার ফারুক আহমেদ পিপিএম (বার) কে ফুলেল বিস্তারিত →

কুমিল্লায় ফেন্সিডিল ও গাঁজাসহ একজন মাদক ব্যবসায়ী আটক

কুমিল্লায় ফেন্সিডিল ও গাঁজাসহ একজন মাদক ব্যবসায়ী আটক

মাহফুজ আনোয়ার সৌরভ: কুমিল্লা বুড়িচং উপজেলা হতে তিনশত তিন বোতল ফেন্সিডিল ও ছয় কেজি গাঁজাসহ মোঃ সোহাগ মিয়া (২৪) নামের একজন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে বিস্তারিত →

ইন্ডিয়ান সিরিয়াল আমাদের সংস্কৃতিতে প্রচণ্ড আঘাত হানছে: তথ্যমন্ত্রী

ইন্ডিয়ান সিরিয়াল আমাদের সংস্কৃতিতে প্রচণ্ড আঘাত হানছে: তথ্যমন্ত্রী

বর্তমান প্রতিদিন ডেস্ক: ঘুড়ি উৎসব পুরান ঢাকার ঐতিহ্যের পাশাপাশি দেশের ঐতিহ্য বলে মন্তব্য করে তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, আমাদের বিস্তারিত →

ই-মেইলে কুবি শিক্ষকদের হত্যার হুমকি; প্রশাসনের থানায় অভিযোগ

ই-মেইলে কুবি শিক্ষকদের হত্যার হুমকি; প্রশাসনের থানায় অভিযোগ

মাহমুদুল হাসান, কুবি প্রতিনিধি: কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের ফার্মেসি বিভাগের শিক্ষকদের একই বিভাগের শিক্ষার্থী ও তার বাবার পরিচয় ব্যবহার করে লাগাতার ই-মেইলে হুমকি দেয়ার ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ বিস্তারিত →

প্রধানমন্ত্রিত্বের চেয়ে কাজের সুযোগই আমার কাছে বড় প্রাপ্তি : শেখ হাসিনা

প্রধানমন্ত্রিত্বের চেয়ে কাজের সুযোগই আমার কাছে বড় প্রাপ্তি : শেখ হাসিনা

বর্তমান প্রতিদিন ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, সরকার মধ্যস্বত্তভোগীদের দৌরাত্ম হ্রাসকল্পে সামাজিক নিরাপত্তা বলয়ের বিভিন্ন ভাতার টাকা সরাসরি উপকারভোগীর মোবাইলে প্রেরণের উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। আমরা বিস্তারিত →

ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন

সর্বশেষ খবর

Archives

SatSunMonTueWedThuFri
      1
16171819202122
23242526272829
3031     
   1234
       
    123
45678910
25262728293031
       
  12345
27282930   
       
29      
       
      1
       
    123
18192021222324
       
      1
16171819202122
30      
     12
       
    123
       
14151617181920
21222324252627
28293031   
       
      1
2345678
30      
     12
       
    123
25262728   
       
      1
2345678
9101112131415
3031     
      1
30      
   1234
567891011