নাম পরিবর্তন কারী কিছু দেশ

৬ এপ্রিল, ২০১৯ ০৮:০০ pm

বর্তমান প্রতিদিন ডেস্ক:
১৯৭১ সালের পূর্বে আমরা ছিলাম পূর্ব পাকিস্তানের অধিবাসী।কিন্তু ১৯৭১ সালে ৯ মাস রক্তক্ষয়ী যোদ্ধের পর নতুন নামে পরিচিত হয়ে বাংলাদেশ হয়।একটি নতুন রাষ্ট্রের জন্মের পর তার জাতীয় পতাকা, জাতীয় সঙ্গীত, সীমানা, সংবিধান, সরকার পদ্ধতিসহ অনেক কিছুই নতুন করে নির্ধারণ করতে হয়। কিন্তু স্বাধীনতা ছাড়াও কোনো কোনো দেশের নাম পরিবর্তন করা হতে পারে।

 

   ১৯৭১ সালে ৯ মাস রক্তক্ষয়ী যোদ্ধের পর নতুন নামে পরিচিত হয়ে         বাংলাদেশ হয়

 

গত ১৯ এপ্রিল দেশটির ৫০তম স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষ্যে দেশটির রাজা তৃতীয় মসোয়াতি ঘোষণা করেন, এখন থেকে আর সোয়াজিল্যান্ড (Swaziland) না, বরং দেশটি পরিচিত হবে ইসোয়াতিনি (eSwatini) হিসেবে। নাম পরিবর্তন করার কারণটি খুবই অদ্ভুত। রাজার ভাষায়, তারা যখন বিদেশে যান, তখন অনেকেই সোয়াজিল্যান্ডকে সুইজারল্যান্ড বলে ভুল করে। এই ভুল সংশোধন করার জন্যই তিনি দেশটির নাম পাল্টে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

 

                           সোয়াজিল্যান্ডের মানচিত্র ও পতাকা

 

১৮৯৮ সাল থেকে ১৯৬৪ সাল পর্যন্ত বর্তমান জিম্বাবুয়ের নাম ছিল সাদার্ন রোডেশিয়া। রোডেশিয়া নামটির উৎপত্তি হয়েছে ব্রিটিশ ঔপনিবেশিক ব্যবসায়ী সেসিল রোডস এর নাম থেকে। ষাটের দশক থেকে দেশটির অধিবাসীরা জাতীয়তাবাদ দ্বারা অনুপ্রাণিত হয়ে রোডেশিয়া নামটির পরিবর্তে জিম্বাবুয়ে নামটির প্রচলন শুরু করে। স্বাধীনতা আন্দোলনের সাথে সম্পৃক্ত বিভিন্ন সাংগঠনও নিজেদের নামের সাথে জিম্বাবুয়ে নামটি ব্যবহার করতে শুরু করে।

 

                                                          জিম্বাবুয়ের পতাকা

 

বর্তমান ইরান ছিল পারস্য বা পার্সিয়ান সাম্রাজ্যের কেন্দ্রবিন্দু। তবে বহির্বিশ্বে গ্রিকদের দেওয়া পার্সিয়া নামে পরিচিত থাকলেও ইরানের ভেতরে অনেক অঞ্চলে শত শত বছর ধরে দেশটি ইরান নামেই পরিচিত ছিল। ১৯৩৫ সালের নওরোজের দিন ইরনের রেজা শাহ পাহলভি আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে অনুরোধ করেন, ইরানকে পার্সিয়ার পরিবর্তে ইরান নামে ডাকার জন্য। ধারণা করা হয়, জার্মানীতে নিযুক্ত ইরানি রাষ্ট্রদূত নাৎসি জার্মানদের দ্বারা প্রভাবিত হয়ে শাহকে ইরানের নাম পরিবর্তন করানোর জন্য প্ররোচিত করেছিলেন।

 

                                                                 ইরানের পতাকা

 

মায়ানমারের পূর্ব নাম ছিল বার্মা। কিন্তু ১৯৮৯ সালে দেশটি নিজেদেরকে মায়ানমার হিসেবে পরিচিত করে। নামের এ পরিবর্তন প্রাথমিক দিকে আন্তর্জাতিকভাবে খুব বেশি সমর্থন পায়নি, কারণ সে সময় ক্ষমতায় ছিল মায়ানমারের সেনাবাহিনী, যাকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্যসহ অনেক রাষ্ট্রই অবৈধ হিসেবে গণ্য করত। ১৯৮৯ সালেই সেনাবাহিনীর গুলিতে সহস্রাধিক বেসামরিক জনগণ নিহত হয়েছিল। জাতিসংঘ, ফ্রান্স, জাপানসহ কয়েকটি দেশ নতুন নাম হিসেবে মায়ানমারকে স্বীকৃতি দিলেও যুক্তরাষ্ট্র ও ব্রিটেন দীর্ঘদিন পর্যন্ত বার্মা নামটিই ব্যবহার করে।

 

                                                     মায়ানমারের পতাকা

 

শ্রীলঙ্কার সাথে প্রাচীনকাল থেকেই আরব, গ্রিক, রোমান প্রভৃতি জাতির সাথে ব্যবসায়িক সম্পর্ক ছিল। সে সময় তামিল শব্দ সেরেনতিভু (চেরাস পর্বতের দেশ) অনুসারে দেশটি আরবদের কাছে সেরানদিব, রোমানদের কাছে সেরেনডিভিস প্রভৃতি নামে পরিচিত ছিল। এই নাম পরবর্তীতে বিবর্তিত হয়ে গ্রীকদের কাছে সিলেন দিভা নামে পরিচিত হয়। পরবর্তীতে ঔপনিবেশিক সময় এই সিলেন বা সিলন নামটি স্থায়ী হয়ে যায়।

                                                 শ্রীলঙ্কার পতাকা

 

বাংলাদেশের পূর্ণ নাম গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ। ফ্রান্সের পূর্ণ নাম দ্য ফ্রেঞ্চ রিপাবলিক। কিন্তু এই দেশগুলো বাংলাদেশ এবং ফ্রান্স নামেও স্বীকৃত এবং সমধিক পরিচিত। কিন্তু চেক রিপাবলিকের কোনো সংক্ষিপ্ত নাম ছিল না, তারা তাদের পূর্ণ নাম চেক রিপাবলিক হিসেবেই সব জায়গায় পরিচিত ছিল। ২০১৬ সালে দেশটির পার্লামেন্ট এক ভোটাভুটির মাধ্যমে তাদের নাম হিসেবে চেকিয়া নির্ধারণ করে।

বলা হয়, দেশটির বিভিন্ন কোম্পানী যেন সহজে বহির্বিশ্বে পরিচিত পেতে পারে, সেজন্যই এ উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এর আগে অনেকগুলো কোম্পানী প্রস্তুতকারক দেশের নাম নির্দেশ করত শুধুমাত্র ‘চেক’ দিয়ে, যা অর্থগত দিক থেকে ভুল ছিল। কারণ চেক শব্দটি একটি বিশেষণ, যা দ্বারা চেক প্রজাতন্ত্রের অধিবাসীদেরকে বোঝানো হয়।

 

                                    চেকিয়ার পতাকা;

 

বুরকিনা ফাসো পূর্বে পরিচিত ছিল ঔপনিবেশিক ফরাসিদের দেওয়া নাম আপার ভোল্টা হিসেবে। নামটি দেওয়া হয়েছিল ভোল্টা নদীর নামানুসারে, যা দেশটির মধ্য দিয়ে প্রবাহিত হয়েছে। ১৯৮৪ সালে প্রেসিডেন্ট থমাস সাঙ্কারা দেশটির নাম পরিবর্তন করে বুরকিনা ফাসো রাখেন।

 

                                      বুরকিনা ফাসোর পতাকা;

 

বর্তমান ইথিওপিয়া রাষ্ট্রটি একসময় আবিসিনিয়া হিসেবে পরিচিত ছিল। কিন্তু তাদেরকে নাম পরিবর্তন করতে হয়নি। কারণ ইথিওপিয়া যখন ১৯৪৮ সালে প্রথম জাতিপুঞ্জের সদস্য হয়, তখনই ইথিওপিয়া নামে অন্তর্ভুক্ত হয়। আবিসিনিয়া ছিল মূলত ইথিওপিয়ার একটি অংশ, যা আবিসিনিয়ান সাম্রাজ্যের অন্তর্ভুক্ত ছিল। মূলত আরব ইতিহাসবিদদের লেখার মধ্য দিয়েই দেশটি আবিসিনিয়া হিসেবে পরিচিতি লাভ করেছিল, যদিও মূল ইথিওপিয়া ছিল আবিসিনিয়ান সাম্রাজ্যের চেয়ে আকারে আরো বড়।

                                                              ইথিওপিয়ার পতাকা;

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

বাংলাদেশের নাম কীভাবে ‘বাংলাদেশ’ হল?

বাংলাদেশের নাম কীভাবে ‘বাংলাদেশ’ হল?

বর্তমান প্রতিদিন ডেস্ক:   এই দেশের নাম বাংলাদেশ রাখার পেছনে রয়েছে হাজার বছরের ইতিহাস। কীভাবে এই দেশের নাম বাংলাদেশ রাখা হল – এ বিষয়টিকে ইতিহাসের বিস্তারিত →

আগুন ছাড়া চোখে কিছু দেখা যাচ্ছিল না….

আগুন ছাড়া চোখে কিছু দেখা যাচ্ছিল না….

  বর্তমান প্রতিদিন ডেস্ক: রাজধানীতে পুরান ঢাকার আরেকটি ভয়াবহ ট্রাজেডির সাক্ষী হলো বিশ্ববাসী। এই ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে কেড়ে নিয়েছে অন্তত ৮১টি তাজা প্রাণ। আরো অর্ধশত মানুষ বিস্তারিত →

দেশ সেরা পাঁচ শিক্ষিত জেলাঃ

দেশ সেরা পাঁচ শিক্ষিত জেলাঃ

বর্তমান প্রতিদিন ডেস্ক: ১৯৭১ সালে বিধ্বস্ত হওয়া এই দেশটি পুনরায় ঘুরে দাড়িয়ে গুটি গুটি পায়ে এগিয়ে যাচ্ছে। যদিও আমরা শুনে থাকি বাংলাদেশ উন্নয়নশীল দেশে পরিনত বিস্তারিত →

কৃষি-কৃষক, ক্ষেতমজুর ও দেশ বাঁচাও?

কৃষি-কৃষক, ক্ষেতমজুর ও দেশ বাঁচাও?

সাইফুর রহমান শামীম,কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি: ‘কৃষি-কৃষক, ক্ষেতমজুর ও দেশ বাঁচাও’ এই স্লোগানে কুড়িগ্রামে সমাজতান্ত্রিক ক্ষেতমজুর ও কৃষক ফ্রন্টের বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।   মঙ্গলবার বিস্তারিত →

কুমিল্লায় আল্লাহর ৯৯ টি গুণবাচক নাম ও পবিত্র কালিমা খচিত ফলক

কুমিল্লায় আল্লাহর ৯৯ টি গুণবাচক নাম ও পবিত্র কালিমা খচিত ফলক

মো: দেলোয়ার হোসেন মুন্না: মুন্সীগঞ্জে আল্লাহর ৯৯টি পবিত্র নাম সমূহ খচিত আসমাউল হুসনা নামের মিনারের ফলক উম্মোচন করা হয়েছে। কিন্তু অনেকেই তা জানে না যে বিস্তারিত →

ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন

সর্বশেষ খবর

Archives

SatSunMonTueWedThuFri
  12345
20212223242526
27282930   
       
      1
       
    123
18192021222324
       
      1
16171819202122
30      
     12
       
    123
       
14151617181920
21222324252627
28293031   
       
      1
2345678
30      
     12
       
    123
25262728   
       
      1
2345678
9101112131415
3031     
      1
30      
   1234
567891011
       
Surfe.be - cheap advertising